বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ০৪:৩৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম :

সালথায় ট্রলি উল্টে যুবকের মৃত্যু

  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ২৮ জুন, ২০২৪, ৬.৫৪ এএম
  • ৩০ বার পাঠিত

শরিফুল হাসান, সালথা (ফরিদপুর) প্রতিনিধিঃ- ফরিদপুরের সালথায় অবৈধ ট্রলিগাড়ির চাপায় মো: ইমন মোল্যা (২০) নামের এক যুবকের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। নিহত ইমন উপজেলার গট্টি ইউনিয়নের বড় লক্ষণদিয়া গ্রামের দক্ষিণ পাড়ার মানদার মোল্লার একমাত্র ছেলে। বৃহস্পতিবার (২৭ জুন) বিকাল ৪টার দিকে পার্শ্ববর্তী বড় লক্ষণদিয়ার পূর্বপাড়া শালীডাঙ্গা খালপাড় এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। এর আগে ভোরে ইমনের নানা বার্ধক্য জনিত কারণে মৃত্যু বরণ করেন।

প্রাথমিক ভাবে জানা যায়, পার্শ্ববর্তী নগরকান্দা উপজেলার তালমা এলাকার রমজান নামক এক মাটি ব্যবসায়ির সাইডে খালি ট্রলি গাড়ি নিয়ে শালীডাঙ্গা খালের পাড় দিয়ে যাওয়ার সময় ট্রলি গাড়িটি খালের মধ্যে পড়ে ঘটনাস্থলেই ইমন মারা যায়। ইমন গাড়িটি চালায়ে নিয়ে যাচ্ছিলো। গাড়ির চালক আলমাস পাশেই বসা ছিলো। ট্রলি গাড়ি খাদে পড়ে গেলে আলমাস লাফিয়ে প্রাণ বাঁচায়। এরপর পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা স্থানীয়দের সহায়তায় ইমনের লাশ উদ্ধার করে। ইমনের মৃত্যু নিয়ে স্বজনদের অভিযোগ থাকায় পুলিশ ট্রলি গাড়ির চালক আলমাস কে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।

ইমনের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে গট্টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান লাবলু বলেন, আমি ফরিদপুর যাচ্ছিলাম পথিমধ্যে খবর পাই আমার এলাকার এক যুবক ট্রলি দূর্ঘটনায় মারা গেছে। এরপর আমি সালথা থানায় খবর দেই এবং আমি নিজেও ঘটনাস্থলে ছুটে যাই। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে গেছে। আমি ঘটনার সুষ্ঠ তদন্ত দাবি করি এবং এই ট্রলি গাড়ি বন্ধের আবেদন জানাই।

সালথা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ফায়েজুর রহমান বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের একটি টিম ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। পরিবারের অভিযোগ থাকায় আমরা ট্রলির চালক আলমাস কে আটক করি এবং ট্রলি গাড়িটি চেয়ারম্যানের জিম্মায় রাখা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ট্রলি চালক আলমাস দূর্ঘটনার বিষয়টি জানায়। এই বিষয়ে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

দয়াকরে নিউজটি শেয়ার করুন

আরো পড়ুন.....

greenaronno.com

themes052459
© All rights reserved © 2018 মুক্তকণ্ঠ
Theme Download From Bangla Webs