মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ০৩:২০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
ভালুকার শিল্প কারখানার শ্রমিকদের শতভাগ বেতন বোনাস নিশ্চিত করছে শিল্প পুলিশ ভালুকায় ভিজিএফের চাল নিতে আসা হতদরিদ্রদের মাঝে শরবত-পানি ও পান পরিবেশন করে প্রসংশিত ইউপি চেয়ারম্যান ময়মনসিংহের শিল্প পুলিশ শিল্পাঞ্চলে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় বদ্ধপরিকর ভালুকায় ভূমিসেবা বিষয়ক সচেতনতামূলক সভা ভালুকায় বিয়ের পর যৌতুক না দেয়ায় স্বামীর বাড়িতে উঠিয়ে না নেয়ায় নববধূর বিষ খেয়ে আত্মহত্যা আমারবাংলা সাহিত্য পুরষ্কার ও আমার কথা ভালুকায় মসজিদ নিয়ে ফেসবুকে কটুক্তি করায় গ্রেপ্তার-০১ ভালুকায় সাবেক এমপি আমান উল্লাহ চৌধুরীর ১০ম মৃত্যুবার্ষিকী পালিত সালথায় জনসাধারণের মাঝে বিএনপি’র খাবার পানি ও স্যালাইন বিতরণ ভালুকায় দুই দিন ব্যাপী কবি ও কবিতা উৎসব ও আমারবাংলা সাহিত্য পুরষ্কার প্রদান

ঐক্য, সংগ্রাম ও সহনশীলতার প্রতীক ছিলেন বঙ্গমাতা

  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ৮ আগস্ট, ২০২৩, ১.২৮ পিএম
  • ১৩৫ বার পাঠিত

মোহাম্মদ সেলিম, ত্রিশাল থেকে:- বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব ছিলেন ঐক্য, সংগ্রাম ও সহনশীলার প্রতীক। তাঁর আদর্শ ও চেতনাকে ধারণ করে আমাদেরও একসঙ্গে এই বিশ্ববিদ্যালয়কে একটি স্মার্ট ক্যাম্পাস হিসেবে গড়ে তুলতে হবে বলে উল্লেখ করেছেন জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. সৌমিত্র শেখর।

তিনি বলেন, বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হল চালুর আগে শিক্ষার্থীরা দাবি করেছিল থাকার জন্য নূন্যতম সুবিধার ব্যবস্থা করতে তিন সপ্তাহের সময় দিয়েছিলাম। শিক্ষার্থীদের দাবীর কথানুযায়ী ২০ দিনের মধ্যেই এই দুই হলে শিক্ষার্থীদের থাকার ব্যবস্থা করি হয়েছে। আমি জানি এই হলে যেসকল সুবিধা থাকার কথা তা এখনও নেই। কিন্তু মনে রাখতে হবে একের পর দুই হয়, পঞ্চাশ নয়। তাই সময় দিতে হবে, বঙ্গমাতার আদর্শকে ধারণ করে আমাদের সহনশীল হতে হবে। ধৈর্য ধারণ করে আমাদের কাজ করার পরিবেশ দিতে হবে। আমাদের প্রাধান্য তালিকা রয়েছে, একে একে সবই হবে। শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে উপাচার্য বলেন, তোমরা বিভ্রান্তির চোরাবালিতে পা দিবে না। আমাদের বিশ্ববিদ্যালয় একটি পরিবার, বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসের উন্নয়নে তাই পরিবাররের সকল সদস্যের অংশগ্রহণ জরুরি।
সংগ্রাম-স্বাধীনতা প্রেরণায় বঙ্গমাতা’ শ্লোগানকে সামনে রেখে ০৮ আগস্ট ২০২৩ তারিখ মঙ্গলবার সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হল কর্তৃক আয়োজিত ‘বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব এঁর ৯৩তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষ্যে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
আলোচনা সভার শুরুতে মাননীয় উপাচার্য বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। আলোচনা সভায় তিনি হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পরিবারের সকল শহিদ এবং ৩ নভেম্বরে জেল হত্যা দিবসে নিহত নেতাদের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।
এছাড়াও আলোচনা সভায় আলোচক হিসেবে বক্তব্য রাখেন নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার কৃষিবিদ ড. মো. হুমায়ুন কবীর এবং প্রক্টর সঞ্জয় কুমার মুখার্জী প্রমূখ। বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হলের অধ্যক্ষ নুসরাত শারমিন আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন। এসময় কর্মকর্তা,শিক্ষক ও বিভিন্ন হলের শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

দয়াকরে নিউজটি শেয়ার করুন

আরো পড়ুন.....

greenaronno.com

themes052459
© All rights reserved © 2018 মুক্তকণ্ঠ
Theme Download From Bangla Webs