শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১২:৪৩ অপরাহ্ন

হাতিয়া গৃহবধু হত্যার ৩দিন পর স্বামী গ্রেপ্তার 

  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ১ নভেম্বর, ২০২২, ১২.২১ পিএম
  • ১৫১ বার পাঠিত

জিএম ইব্রাহীম,হাতিয়া (নোয়াখালী) প্রতিনিধিঃ- নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়া গৃহবধুকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে স্বামীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রবিবার সকালে হাতিয়া পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ড উত্তর বেজুগালীয়া গ্রামে স্বামীর নিজ বাড়িতে এ হত্যার ঘটনাটি ঘটেছে।

জানা যায়, নিহত সুরমা বেগমের মা সাফিয়া বেগম  বাদী হয়ে মেয়ে সুরমার স্বামী মোঃ নাজিম উদ্দীন সহ ৪ জনকে আসামি করে মঙ্গলবার হাতিয়া থানায় একটি  হত্যা মামলা দায়ের করেন, (মামলা নং ০১) হত্যার তিন দিন পর হাতিয়া থানা এসআই সাগর ও এসআই সঞ্চয় এর নেতৃত্বে প্রধান আসামি নাজিম উদ্দীনকে তার বাড়ির পাশ্বে কামালের বাড়ি থেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। প্রায় ৭মাস পূর্বে পৌরসভার ৪ নং ওয়ার্ড উত্তর বেজুগালীয়া গ্রামের মৃত বশির উল্ল্যার ছেলে নাজিম উদ্দীন এর সাথে পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ড চরকৈলাশ গ্রামের আবু তাহেরের মেয়ের বিয়ে বন্ধনে আবদ্ধ হয়।পারিবারিক কলহের জের ধরে রবিবার সকালে নাজিম উদ্দীন তার নিজ বাড়ির বসত ঘরে স্ত্রী সুরমা বেগমকে (১৯) পিটিয়ে মাথায় আঘাত ও পরে গলা টিপে হত্যা করেছে বলে নিহতের মা সাফিয়া বেগম  দাবি করেন।
নিহত সুরমা বেগমের বড় ভাবি জিন্নাত আরা বলেন নাজিম সকাল প্রায় ৯টার সময় মোবাইল ফোণে সরমাকে মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে ফোন কেটে দেয়। কিছু সময় পর দ্বিতীয় বার ফোন করে সুরমা অজ্ঞান হয়ে পড়ে আছে আপনারা তাড়াতাড়ি আসেন বলেই ফোন কেটে দেয়। এ খবরে সুরমা বেগমের বাবা মা আত্মীয় স্বজন ছুটে গেলে সুরমার লাশ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশকে খবর দেয়। ঘটনার পর স্বামী নাজিম উদ্দীন পালিয়ে যায়।
এ বিষয়ে হাতিয়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ আমির হোসেন মানবকন্ঠকে বলেন হত্যার বিষয়টি তদন্তাধীন রয়েছে। মামলার প্রধান আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্য আসামীদের গ্রেফতার অভিযান অব্যহত আছে। মামলার প্রস্তুতি চলছে। আসামি গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

দয়াকরে নিউজটি শেয়ার করুন

আরো পড়ুন.....

greenaronno.com

themes052459
© All rights reserved © 2018 মুক্তকণ্ঠ
Theme Download From Bangla Webs