শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১০:২৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ভালুকা উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী হাজ্বী রফিকের কর্মী সভা অনুষ্ঠিত ভালুকায় শিয়াল তাড়াতে গিয়ে স্কুল ছাত্রীর মৃত্যু সরকার ঘোষিত নতুন বেতন কাঠামো অনুযায়ী বেতন ভাতার দাবীতে ভালুকায় শ্রমিকদের বিক্ষোভ ভালুকায় কৃষকদের মাঝে কৃষি উপকরণ বিতরণ ময়মনসিংহের যুব মহিলা লীগের নেত্রী রানী’র সাইবার মামলার রহস্য ফাঁস ভালুকায় ডিবির হাতে হেরোইনসহ আটক-৩ ভালুকায় বিশ্ব মা দিবস উদযাপন ভালুকায় ডায়মন্ড লাইফ ইন্সুইরেন্সে মৃত্যু দাবী চেক বিতরণ ও আলোচনা সভা ভালুকা উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন যারা ভালুকায় পরকিয়া সন্দেহে স্ত্রীকে গলা কেটে হত্যা করেছে স্বামী

ভালুকায় মাদরাসা সুপারের বিরুদ্ধে এমপির সাক্ষর জালের অভিযোগ

  • আপডেট টাইম : বুধবার, ৩০ জুন, ২০২১, ২.৩৮ এএম
  • ৩১২ বার পাঠিত

জিএম, ভালুকা প্রতিনিধিঃ ময়মনসিংহের ভালুকায় সংসদ সদস্যের সাক্ষর জাল করে নিরাপত্তা কর্মি নিয়োগের অভিযোগ উঠেছে এক মাদরাসা সুপারের বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার মল্লিকবাড়ি ইউনিয়নের মল্লিকবাড়ি পূর্বপাড়া ইসলামিয়া বালিকা দাখিল মাদরাসার সুপার আবুল কাশেমের বিরুদ্ধে। অভিযোগ সূত্রে জানা যায় নবসৃষ্ট নিরাপত্তাকর্মি নিয়োগের ক্ষেত্রে উক্ত মাদরাসার সুপার আবুল কাশেম মাদরাসার সভাপতি স্থানীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব কাজিম উদ্দিন আহাম্মেদ ধনু’র সাক্ষর জাল করে মোবারক হোসেন নামের এক ব্যক্তিকে নিরাপত্তাকর্মি হিসেবে নিয়োগ প্রদান করে। এ বিষয়ে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার বরাবরে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। এ বিষয়ে অভিযোক্ত সুপার আবুল কাশেমের কাছে জানতে চাইলে তিনি কোন বক্তব্য দিতে রাজি হননি। উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার নজরুল ইসলাম বলেন, অভিযোগ পেয়েছি আমরা বিষয়টি তদন্ত করবো তারপর বলতে পারবো। তিনি আরও বলেন, আমার অফিসের একজনের করোনা পজিটিভ তাই আমরা অফিসে আসিনা। করোনার সত্যতা জানতে চাইলে তিনি বলেন রিপোর্ট এখনো পাইনি তবে টেস্ট দেয়া হয়েছে। স্থানীয়দের দাবি অভিযোক্ত সুপার আবুল কাশেম ৬নং ওয়ার্ড বিএনপির সভাপতি। তিনি অতিতেও বিভিন্ন অসামাজিক কার্যকলাপে জরিত ছিলেন এবং তার বিরুদ্ধে অসংখ্য অভিযোগ রয়েছে। নিরাপত্তাকর্মি পদে নিয়োগপ্রাপ্ত মোবারক হোসেন বলেন, আমি সকল নিয়ম মেনেই নিয়োগ পেয়েছি কিন্তু একদিন কাগজ পত্র ঘাটতে গিয়ে দেখি মাদরাসার সভাপতি আমাদের এমপি সাহেব আমার ইন্টারভিও নেয়ার সময় যে সাক্ষর দিয়েছিলেন সে সাক্ষরের সাথে অন্যান্য কাগজে দেয়া সাক্ষরের কোন মিল নেই তাই আমি বিষয়টি মাদরাসার বিদ্যুৎ সাহী সদস্য ছোহরাব ভাই কে জানাই পরে তিনিই মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার বরাবরে অভিযোগ দায়ের করেন। এ বিষয়ে সংসদ সদস্য আলহাজ্ব কাজিম উদ্দিন ধনু বলেন, আমার অজান্তেই এই সুপার আমার সাক্ষর জাল করে নিরাপত্তাকর্মি নিয়োগ দিয়েছে বিষয়টি আমি শুনেছি এবং মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসারকে ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ দিয়েছি।

দয়াকরে নিউজটি শেয়ার করুন

আরো পড়ুন.....

greenaronno.com

themes052459
© All rights reserved © 2018 মুক্তকণ্ঠ
Theme Download From Bangla Webs